দেশের সাংস্কৃতিক অঙ্গনে সাতক্ষীরার শিক্ষার্থীদের অভাবনীয় সাফল্য


এম বেলাল হোসাইন: সাংস্কৃতিক অঙ্গনে প্রতিবছরই সাতক্ষীরার শিক্ষার্থীরা কৃতিত্ব অর্জন করে চলেছে। এদের মধ্যে তালা উপজেলার মোবারকপুর গ্রামের দেবপ্রসাদ পালের কন্যা দেবশ্রী পাল জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ ২০১৮ তে উচ্চাঙ্গ সঙ্গীতে জাতীয় পর্যায়ে অংশগ্রহণ করে ৩য় স্থান অধিকার করে। এছাড়া ২০১৬ সালে প্রথম নজরুল সঙ্গীতে জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহে অংশগ্রহণ করে। ২০১৭ সালে নজরুল ও উচ্চাঙ্গে। সে শহীদ মুক্তিযোদ্ধা মহাবিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের ¯œাতক (সম্মান) ৪র্থ বর্ষের একজন নিয়মিত ছাত্রী। একই এলাকার দীনবন্ধু দাশের পুত্র দীপ দাশ ২০১২ সালে জাতীয় শিশু পুরষ্কার প্রতিযোগিতায় রবীন্দ্র সংগীতে ৩য় স্থান, ২০১২ সালে জাতীয় শিশু পুরষ্কার প্রতিযোগিতায় উচ্চাঙ্গ সংগীতে ১ম স্থান, ২০১৪ সালে জাতীয় শিশু পুরষ্কার প্রতিযোগিতায় নজরুল সংগীতে ১ম স্থান, ২০১৮ সালে জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ প্রতিযোগিতায় উচ্চাঙ্গ সংগীতে ২য় স্থান অধিকার কলে। বর্তমানে শহীদ মুক্তিযোদ্ধা মহাবিদ্যালয়ের একাদশ শ্রেণির ছাত্র হিসাবে বর্তমান বছরে উপজেলার শ্রেষ্ট শিক্ষার্থী নির্বাচিত হয়েছে। একই উপজেলার মহল্লাপাড়া গ্রামের কাজী মমিনুল বারীর কন্যা কাজী নাফিয়া আনজুম চারু জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ-২০১৮ তে জাতীয় পর্যায়ে নজরুল সংগীত ‘ক’ বিভাগের ৩য় স্থান করে। সে শহীদ আলী আহম্মদ সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণির ছাত্রী। সাতক্ষীরা সদরের মুনজিতপুর গ্রামের শ্যামল সরকারের কন্যা মন্দিরা শিশু পুরষ্কার ২০১৮ তে ‘ক’ বিভাগে নজরুল সঙ্গীতে জাতীয় পর্যায়ে ৩য় স্থান অধিকার করেছে। সে সাতক্ষীরা সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ৪র্থ শ্রেণির ছাত্রী। একই উপজেলার ব্রহ্মরাজপুর গ্রামের বিশ্বজিৎ সাহার কন্যা সুম্মিতা সাহা জাতীয় শিশু পুরষ্কার প্রতিযোগিতায় ২০১২ সালে নজরুল সংগীতে ‘ক’ বিভাগে ২য়, ২০১৪ সালে রবীন্দ্র সংগীতে ‘খ’ বিভাগে ২য় পুরুষ্কার, ২০১৬ সালে দেশাত্মবোধক সংগীতে ‘খ’ বিভাগে ২য় পুরষ্কার এবং জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ ২০১৮ তে জাতীয় পর্যায়ে ‘গ’ বিভাগে দেশাত্মবোধক সংগীতে ১ম স্থান এবং নজরুল সঙ্গীতে ১ম স্থান অধিকার করেছে। সে জাতীয় পর্যায়ে ২টি স্বর্ণপদকও লাভ করেছে। সে সাতক্ষীরা সরকারি মহিলা কলেজের শিক্ষার্থী। ইটাগাছা এলাকার অনন্ত কুমার রায়ের কন্যা অনিষা রায় ২০১১ সালে জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা সপ্তাহ বিভাগীয় পর্যায়ে শিশু শিল্পীর বাছাই প্রতিযোগিতায় সংগীতে ১ম স্থান, ২০১৪ সালে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরিক্ষায় টেলেন্টপুলে বৃত্তি লাভ, জাতীয় শিশু কিশোর সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতায় হামদ্/নাত এ জাতীয় পর্যায়ে ৩য় স্থান অধিকার ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কর্তৃক সনদপত্র গ্রহণ। ২০১৭ সালে শিক্ষা অধিদপ্তরে কচি কাঁচা বোম্বে সুইটস এর আয়োজেনে দেশাত্ববোধক সংগীতে ২য় স্থান, কচি কাঁচা বোম্বে সুইটস প্রতিযোগিতায় জেলা পর্যায়ে প্রথম স্থান, ২০০৩ সালে হামদ্/নাত ২য় স্থান, জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ ২০১৮ তে জাতীয় পর্যায়ে ‘গ’ বিভাগে হামদ্/নাত ২য় স্থান অধিকার করে। সে সাতক্ষীরা বালিকা বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী। এছাড়া প্রসেনজিত বন্দোপাধ্যায়ের ছেলে শুভজিত বন্দোপাধ্যায় ২০১৭ সালে সমগ্র দেশের মধ্যে চিত্রাংকনে ২য় স্থান অর্জন করে এবং ২০১৮ সালে জাতীয় শিশু পুরষ্কার প্রতিযোগিতায় চিত্রাংকনে ‘গ’ বিভাগে ১ম স্থান অর্জন করে স্বর্ণ পদক লাভ করে এবং প্রজ্ঞা পারমিতা রহমান ২০১৮ সালে জাতীয় জাতীয় শিশু পুরষ্কার প্রতিযোগিতায় আবৃত্তিতে ‘গ’ বিভাগে ৩য় স্থান অর্জন করে।

# প্রতিবেদনটি প্রস্তুত করতে সার্বিক সহযোগিতা করেছেন সাতক্ষীলা জেলা শিল্পকলা একাডেমির সদস্য সচিব শেখ মুশফিকুর রহমান মিল্টন।

Related posts