সাতক্ষীরায় দুস্থ মহিলা উন্নয়ন কর্মসূচিরপ্রশিক্ষক প্রশিক্ষণ উদ্বোধন

বৃহস্পতিবার সকাল ৯টায় শহরের পলাশপোলস্থ দৈনিক দক্ষিণের মশাল সংলাপ কেন্দ্রে বেসরকারি উন্নয়ন সংগঠন প্রগতির আয়োজনে দুস্থ মহিলা উন্নয়ন কর্মসূচির (ভিজিডি) আওতায় তিন দিনের প্রশিক্ষক প্রশিক্ষণ কর্মসূচির উদ্বোধন করা হয়েছে। জেলা মহিলা বিষয়ক কার্যালয়ের উপ-পরিচালক ফরিদা ইয়াসমিন এ কর্মসূচি উদ্বোধন করেন। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন প্রথম আলোর নিজস্ব প্রতিবেদক কল্যাণ ব্যানার্জি। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন জেলা মহিলা বিষয়ক কার্যালয়ের প্রোগ্রাম অফিসার ফাতেমা জোহরা।
বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা পরিষদ সদস্য অ্যাডভোকেট শাহনাজ পারভিন মিলি, জেলা মহিলা বিষয়ক কার্যালয়ের প্রোগ্রাম অফিসার ফাতেমা জোহরা।
বক্তব্য রাখেন উত্তরণের লিগ্যাল অফিসার অ্যাডভোকেট মুনিরউদ্দীন, ডিআরআরএ’র আনজির আহমেদ, হোপ ফর দ্যা পুওরিস্ট সাতক্ষীরার কর্মকর্তা মৃনাল কুমার সরকার, ব্রেকিং দ্যা সাইলেন্স, সাতক্ষীরার অফিস ইনচার্জ শরিফুল ইসলাম, সিডব্লিওসিএস’র রুহুল আমিন, বাংলাদেশ মহিলা আইনজীবী সমিতির প্রতিনিধি সাকিবুর রহমান বাবলা, প্রেরণার নির্বাহী পরিচালক শম্পা গোস্বামী, উন্নয়নকর্মী সুব্রত কুমার দে প্রমুখ। এ সময় প্রগতি বাস্তবায়িত ভিজিডি প্রকল্পে কর্মরত প্রশিক্ষক শেখ রফিকুল ইসলাম, পাপিয়া আহমেদ, সুপ্রকাশ দে ও ফারুক রহমান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
অনুষ্ঠানে প্রগতির প্রধান নির্বাহী দক্ষিণের মশাল সম্পাদক অধ্যক্ষ আশেক-ই-এলাহী বিগত দিনে প্রগতি বাস্তবায়িত মহিলা উন্নয়ন কর্মসূচির (ভিজিডি)সহ বিভিন্ন কর্মসূচির বিস্তারিত তুলে বর্ণনা দেন।
অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, প্রগতি সাতক্ষীরার একটি অধিকারভিত্তিক জনসংগঠন। সাতক্ষীরা সদর উজেলার ১৩টি ইউনিয়নে বর্তমান চক্রে প্রগতি মহিলা উন্নয়ন কর্মসূচি (ভিজিডি) বাস্তবায়নে দক্ষতার প্রমাণ দেবে এমনটাই আমরা আশা করি। কারণ প্রগতি এই জেলায় দীর্ঘদিন খাসজমি, নদী-খাল দখল মুক্ত করতে নানা কর্মসূচি বাস্তবায়ন করে আসছে। একই সাথে নারীর ক্ষমতায়ন, জলবায়ু উদ্বাস্তুদের পুনর্বাসন, উপকূলীয় বাঁধ টেকসই করতে সরকার ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের সাথে কার্যক্রম বাস্তবায়ন করছে। সে আলোকে প্রগতি সাতক্ষীরা সদর উপজেলায় ভিজিডি কর্মসূচি বাস্তবায়নের সাথে সাথে এই কর্মসূচির আওতায় সম্পৃক্ত দুস্থ নারীদের সামগ্রিক উন্নয়ন ও উদ্যোক্তা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে অন্যান্য কর্মসূচি হাতে নেবে। নারী ও কিশোরীদের প্রজনন স্বাস্থ্য সচেতনতায় কাজ করবে।
উল্লেখ্য, সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ১৩টি ইউনিয়নে প্রগতি ২১০০ দুস্থ নারীদের আর্থসামজিক উন্নয়ন ও জীবনদক্ষতা কর্মসূচি প্রশিক্ষণ প্রদান করবে।

Related posts