ব্লু হোয়েল আসক্ত আরও এক শিক্ষার্থী ঢামেকে !

আত্মহত্যার চেষ্টার পর ব্লু হোয়েল গেমের প্রতি আসক্ত আরও এক শিক্ষার্থী অসুস্থ হয়ে চিকিৎসা নিতে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে এসেছে। তার নাম ফয়সাল আহমেদ (২২)।

বুধবার চিকিৎসার জন্য তাকে ঢামেকে নিয়ে আসেন তার স্বজনরা। চাঁদপুর জেলার ফরিদগঞ্জ উপজেলার লাউতলী গ্রামের আবদুল মালেকের সন্তান। ফয়সাল ফরিদগঞ্জ বঙ্গবন্ধু কলেজের বিএ’র ছাত্র।

ফয়সালের খালা নাসিমা আক্তার জানান, চাঁদপুর থেকে গতকাল রাতে ফয়সালকে নিয়ে পরিবার তার মতিঝিলের বাসায় উঠেছে। অনেক কষ্ট করে, অনেক বুঝিয়ে-শুনিয়ে ফয়সালকে ঢামেক হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসতে পেরেছে।

তিনি আরও জানান, ব্লু হোয়েল গেমসে আসক্ত হয়ে ফয়সাল ভবন থেকে লাফিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা পর্যন্ত করেছে। তার হাত কেটেছে, ব্লেড দিয়ে কেটে হাতে মাছ এঁকেছে সে।

ফয়সাল জানায়, সে ব্লু হোয়েল গেমস খেলতে খেলতে ১০ ধাপ পর্যন্ত গিয়েছে। এরপরই অ্যাডমিন তাকে খুব বাজে ও কুৎসিত মন্তব্য করে।
অনেক ভয়ঙ্কর দৃশ্য দেখায়। এ বিষয়ে এর বেশি কিছুই বলতে চায়নি সে।

ঢামেক হাসপাতালের জরুরি বিভাগের মেডিকেল অফিসার ডা. জুয়েল বাড়ৈ জানান, ফয়সালকে তার স্বজনরা চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসেন। তার দুই হাত ব্লেড দিয়ে কাটা ছিল। সে তার বাম হাত ব্লেড দিয়ে কেটে তাতে তিমি মাছ এঁকেছে।

ডা. জুয়েল বাড়ৈ আরো জানান, ফয়সালের কাছে জানতে চাওয়া হয়েছে, ‘তুমি হাত কেটেছো কেন?’ তখন সে জানায়, ব্লু হোয়েল গেমসের অ্যাডমিনরাই তাকে হাত কাটতে বলেছে। তাকে ঢামেকের আউটডোরের মানসিক চিকিৎসা বিভাগে পাঠানো হয়েছে।

Related posts