সাতক্ষীরা সায়র খাল খননের নামে ড্রেনে পরিণতের চক্রান্তের ঘটনায় উদ্বেগ

নিজস্ব প্রতিনিধি : সাতক্ষীরা সায়র খাল খননের নামে খালকে ড্রেনে পরিণত করার চক্রান্তের ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন সাতক্ষীরা বেতনা ও অন্যান্য নদী এবং বন-পরিবেশ রক্ষা কমিটি নেতৃবৃন্দ। সোমবার সরেজমিনে প্রাণ সায়র খাল খনন কাজ পরিদর্শন শেষে নেতৃবৃন্দ এ উদ্বেগ প্রকাশ করেন।
এসময় উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশ জাসদ সাতক্ষীরা শাখার সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ইদ্রিস আলী, সদর উপজেলা সাধারণ সম্পাদক দিদারুল আলম হেলাল, সাতক্ষীরা বেতনা ও অন্যান্য নদী এবং বন-পরিবেশ রক্ষা কমিটির আহবায়ক আবুল হোসেন খোকন, সদস্য সচিব মফিজুর রহমান, যুগ্ম আহবায়ক ও লাবসা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আবু সুফিয়ান সজল, শেখ শওকত আলী, সদস্য রহমত আলী, জেলা ভূমিহীন সমিতির সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সামাদ প্রমুখ।
নেতৃবৃন্দ বলেন, সাতক্ষীরা প্রাণ সায়র খালের পূর্বে মাপ ছিলো ৮০ থেকে ১৩০ ফুটের মত। অথচ স্ক্যাভেটর মেশিন দিয়ে মাত্র ৪০/৪৫ ফুট কাটা হচ্ছে। সেখানে খাল না কেটে উল্টো পাশ থেকে মাটি কেটে খালের মধ্যে দিয়ে খালকে ড্রেনে পরিণত করা হচ্ছে। খালের দীর্ঘ করা হচ্ছে ৪০ থেকে ৪৫ ফুট। আর খালের তলা করা হচ্ছে মাত্র ১০ ফুট। যা একটি ছোট ড্রেন ছাড়া আর কিছুই না। বর্তমানে খাল যে অবস্থায় রয়েছে এই অবস্থাতেই সাতক্ষীরা শহরের সামান্য বৃষ্টিতেই জলাবদ্ধতার কবলে পড়ে। আর যদি এই ভাবে খাল বুজিয়ে ছোট ড্রেনে পরিণত করা হয় তাহলে সাতক্ষীরা আগামী বর্ষা মৌসুমে পানিতে তলিয়ে যাচ্ছে। নেতৃবৃন্দ অবিলম্বে এই খাল কাটার নামে খাল বুজিয়ে দেওয়া বন্ধ করে ১৯৬২ সালের ম্যাপ ১৯৯২ সালের মাপ জরিপ অনুযায়ী খাল খননের দাবি জানান। এর প্রতিবাদে আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় খুলনা রোড মোড়ে পথসভার ঘোষণা দেন তারা।

Related posts