সর্বশেষ সংবাদ-
সাংবাদিক রোজিনা ইসলামকে হেনস্থা ও আটকের প্রতিবাদে সাতক্ষীরায় মানববন্ধনআবারও নারী কেলেংকারীর অভিযোগ! বাগেরহাটের ডিসি বদলিআদালতে সাংবাদিক রোজিনা, ৫ দিনের রিমান্ড চায় পুলিশভারতে করোনায় একদিনে ৪৩২৯ জনের মৃত্যুর নতুন রেকর্ডসাংবাদিক রোজিনাকে নির্যাতন : স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ব্রিফিং বয়কটের ডাকপুলিশের ৪ ডিআইজি অতিরিক্ত আইজিপি হলেনকলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের টিকা দেওয়ার পরিকল্পনাসাতক্ষীরায় কোয়ারেন্টাইনে থাকা ভারত ফেরতদের খাবার দিল জেলা পরিষদবাস-ট্রেন-লঞ্চ আরো কিছুদিন বন্ধ থাকুক : স্বাস্থ্যমন্ত্রীদেশের মানুষের মাসে মাথাপিছু আয় বেড়ে সাড়ে ১৫ হাজার টাকা

3f7273707db5e988478d379b5c12a93a-57c4794cd068eস্ব‌দেশ: চাঁদপুরে স্কুলের বেতন ও পরীক্ষার ফি দিতে না পারায় প্রকাশ্যে কান ধরে ওঠবোস করার অপমান সইতে না পেরে সাথী আক্তার (১৪) নামে এক স্কুলছাত্রী আত্মহত্যা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

সোমবার দুপুরে জেলা সদরের বাগাদী ইউনিয়নের মধ্য বাগাদী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। সাথী স্থানীয় বাগাদী গনি উচ্চ বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণির ছাত্রী। এ ঘটনার পর বিক্ষুব্ধ স্থানীয়রা ওই স্কুলে ভাঙচুর করে ও সাথী আক্তারের সহপাঠীরা ফাতেমা বেগমকে দীর্ঘ সময় বিদ্যালয়ের একটি কক্ষে অবরুদ্ধ করে রাখে।

সাথীর বাবা হতদরিদ্র দেলোয়ার হোসেন তালুকদার চাঁদপুর শহরের পুরাণবাজারে একটি তেলের আড়তে শ্রমিকের কাজ করে।

সাথীর সহপাঠী ও স্থানীয়রা জানান, ইউনিয়নের মধ্য বাগাদী তালুকদার বাড়ির শ্রমিক দেলোয়ার হোসেন তালুকদারের ৮ম শ্রেণিতে পড়ুয়া সাথী আক্তার গত ২৭ আগস্ট শনিবার পরীক্ষার প্রথম দিন বেতন ও পরীক্ষার ফি’র বকেয়া টাকা না দেওয়ায় বিদ্যালয়ের অফিস সহকারী ফাতেমা বেগম তাকে রোদের মধ্যে দাঁড় করিয়ে কান ধরে ওঠবোস করান। এরপর সাথী বাড়িতে এসে বিষয়টি বাবা-মাকে জানান। কিন্তু পরদিন পূর্ণ বকেয়া টাকা না দিতে পারায় সাথী আর পরীক্ষা দিতে যায়নি। পরে অভিমানে বেলা ১১টার দিকে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে। বিষয়টি জানাজানি হলে বিক্ষুব্ধ গ্রামবাসী ও সাথী আক্তারের সহপাঠীরা ফাতেমা বেগমকে দীর্ঘ সময় বিদ্যালয়ের একটি কক্ষে অবরুদ্ধ করে রাখে।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান বিল্লাল গাজী বলেন, ‘স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যার ঘটনায় স্কুলে ভাঙচুরের খবর পেয়ে বিষয়টি পুলিশকে জানাই। ঘটনাস্থলে গেলে ওই স্কুল ছাত্রীর বাবা ওসির কাছে কান্নাকাটির ঘটনা সম্পর্কে জানান। মেয়ের বাবা বলেছেন, বেতনের জন্য রোদে দাঁড় করিয়ে রাখে। আজ (সোমবার) ৩৮০ টাকা তাকে দেই, কিন্তু ২০ টাকা কম ছিলো। এ জন্য সে আর আজ  পরীক্ষা দিতে যায়নি।

স্কুলের শিক্ষার্থীরা জানায়, এই অফিস সহকারী ফাতেমা বেগম সকল শিক্ষার্থীদের সঙ্গে প্রায়ই খারাপ আচরণ করেন।

এদিকে চাঁদপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা অলিউল্লাহৎ বলেন, ‘স্কুলে ভাঙচুরের খবর পেয়ে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনি। আমরা প্রাথমিকভাবে জানতে পেরেছি, স্কুলে দাঁড় করিয়ে রেখেছে, তাই সে টাকা ছাড়া পরীক্ষা দিতে স্কুলে যাবে না। পরে সে সুইসাইড করে। তবে মামলা হবে, তদন্ত হবে এরপরই বিস্তারিত বলা যাবে।’

স্কুলের প্রধান শিক্ষক কামরুল ইসলাম বলেন, ‘আমি হজে যাওয়ার উদ্দেশ্যে ঢাকায় আছি। আপাতত আমার কাছে হজটাই মুখ্য।’

প্রধান শিক্ষকের অবর্তমানে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকের দায়িত্ব কে পালন করছেন তা জানতে চাইলে তিনি জানান, কাউকেই ভারপ্রাপ্ত প্রধান করা হয়নি।

পরে তিনি বলেন, ‘ঘটনাটি আমি শুনেছি। এটি মর্মান্তিক এবং অত্যন্ত দুঃখজনক। পারিবারিক সমস্যার কারণে সে আত্মহত্যা করে থাকতে পারে।

0 মন্তব্য
0 FacebookTwitterGoogle +Pinterest

DSC01700 (Medium)মাহফিজুল ইসলাম আককাজ: সাতক্ষীরায় ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনা ও উৎসব মুখর পরিবেশ ৪৫তম বাংলাদেশ জাতীয় স্কুল ও মাদ্রাসা গ্রীস্মকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতার সমাপনী ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার বিকালে সাতক্ষীরা জেলা শিক্ষা অফিসের আয়োজনে সাতক্ষীরা পি.এন স্কুল এন্ড কলেজ মাঠে জেলা প্রশাসক আবুল কাশেম মো. মহিউদ্দিনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সদর -২ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা পুলিশ সুপার মো. আলতাফ হোসেন, জেলা শিক্ষা অফিসার কিশোরী মোহন সরকার প্রমুখ। সমাপনী ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন সাতক্ষীরা পিএন স্কুল এন্ড কলেজের (ভারপ্রাপ্ত) অধ্যক্ষ মোঃ হাফিজুর রহমান, সাতক্ষীরা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মনোয়ারা খাতুন, নবারুন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি মো. আমিনুর রহমান (উল্লাস), ফিফা রেফারি তৈয়েব হাসান বাবু, ক্রীড়া শিক্ষক সাইফুল ইসলাম, মোঃ জাহিদ হাসান, মনোরঞ্জন মন্ডল, মোঃ রফিকুল ইসলাম, মোঃ মোমেনুর রহমান, মোঃ আনিছুর রহমান, লাবনী দত্ত, মোঃ রবিউল ইসলাম, ইকবাল আলম বাবলু, মোঃ আবু সাঈদ, মোঃ আব্দুর রউফ, মোঃ রফিকুল ইসলাম প্রমুখ। আলোচনা সভা শেষে বিভিন্ন ইভেন্টে অংশ গ্রহণকারী বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়।

0 মন্তব্য
0 FacebookTwitterGoogle +Pinterest

Tala Picture (29.08.16) (Medium)সেলিম হায়দার, তালা: তালা উপজেলার জাতপুর সমকাল মাধ্যমিক বিদ্যাপীঠ এর শিক্ষার্থীদের মাঝে স্কুল পোষাক (ইউনিফর্ম) বিতরণ করা হয়। সোমবার সকালে সমকাল মাধ্যমিক বিদ্যাপীঠের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি শহিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তালা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ ফরিদ হোসেন। স্বাগত বক্তব্য রাখেন সমকাল মাধ্যমিক বিদ্যাপীঠের প্রধান শিক্ষক মোঃ আলমগীর হোসেন। শিক্ষক স্বদেশ কুমার মল্লিকের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জাতপুর-আলাদীপুর বাজার কমিটির সভাপতি এসএম কামাল হোসেন, সাধারণ সম্পাদক হাসান সরদার, বিদ্যাপীঠ উন্নয়ন কমিটির আব্দুল হাই, সমাজ সেবক ইয়াকুব আলী বিশ্বাস, প্রাক্তন শিক্ষক আবাদুস সবুর, আবুল হাসান সরদারসহ বিদ্যাপীঠের ম্যানেজিং কমিটির নেতৃবৃন্দ, অভিভাবক, শিক্ষক, সাংবাদিক, ছাত্র-ছাত্রীসহ স্থানীয় সুধী মহল। এ সময় স্কুলের শতাধিক ছাত্র-ছাত্রীর মাঝে উক্ত স্কুল পোষাক (ইউনিফর্ম) বিতরণ করা হয়।

0 মন্তব্য
0 FacebookTwitterGoogle +Pinterest

DSC01710 (Medium)মাহফিজুল ইসলাম আককাজ: সাতক্ষীরায় জঙ্গি ও সন্ত্রাস বিরোধী মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার বিকালে সাতক্ষীরা নিউ মার্কেট মোড়ে (শহিদ আলাউদ্দিন চত্বরে) সাতক্ষীরা পৌর আওয়ামীলীগের আয়োজনে এ মানববন্ধন কর্মসূচিতে সাবেক পৌর মেয়র শেখ আশরাফুল হকের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সদর-২ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। মানববন্ধনে আরো বক্তব্য রাখেন পৌর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. সাহাদাৎ হোসেন, আওয়ামীলীগ নেতা মীর মোশারফ হোসেন মন্টু, সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ন সম্পাদক মুনসুর আহম্মেদ, এপিপি এড. আব্দুল লতিফ, এড. নওশের আলী, জয়নাল আবেদীন জোসি, পৌর আ’লীগ নেতা শেখ শফি উদ্দিন সফি, জেলা যুব মহিলালীগের সাধারণ সম্পাদক সাবিহা হোসেন, পৌর আওয়ামীলীগ নেতা কামরুল ইসলাম, জিমি প্রমুখ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের নারান চন্দ্র মন্ডল, লিটন মীর্জা, আনোয়ার হোসেন মিলন, আসাদুজ্জামান, হযরত আলী বাবু, মতিয়ার রহমান, হকার্সলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. আব্দুল গফ্ফার, মো. সাইফুল ইসলামসহ আওয়ামীলীগের বিভিন্ন অংগ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

0 মন্তব্য
0 FacebookTwitterGoogle +Pinterest

সেলিম হায়দার, তালা: তালা উপজেলার জাতীয় শ্রমিকলীগ সাংগঠনিক কর্মকাণ্ড বৃদ্ধি লক্ষে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। উপজেলার জাতীয় শ্রমিকলীগ উদ্যোগে সোমবার বিকালে তালা ডাকবাংলায় আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন উপজেলার জাতীয় শ্রমিকলীগ সভাপতি সূর্ষ্যকান্ত পাল।
উপজেলার জাতীয় শ্রমিকলীগ সাধারণ সম্পাদক মো. সেলিম হোসেন পরিচালনায় অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন, উপজেলার জাতীয় শ্রমিকলীগ সহ-সভাপতি আব্দুল মান্নান, সাংগঠনিক সম্পাদক শাহবোদ্দীন মোড়ল, শ্রমিকলীগ  নেতা দেব্রনাথ, হারুনা আর রশিদ, আসাদ মোড়াল, আব্দুল গফুর, রেজওয়ান, লিটন সরদার, ইলিয়াস হোসেন, আমিনুর রহমান, জাহাঙ্গির হোসেন ফটিক, ওদুদ গাজী প্রমুখ।
আলোচনায় সভায় উপজেলার জাতীয় শ্রমিকলীগ সাধারণ সম্পাদক মো.সেলিম হোসেন বলেন সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ ও নাশকতা মূলক কর্মকান্ডে সবাইকে একসঙ্গে কাজ করতে হবে।

0 মন্তব্য
0 FacebookTwitterGoogle +Pinterest

Bangdhoa (Medium)এম বেলাল হোসেন: সাতক্ষীরাবাসীর প্রধান সমস্যা এখন জলাবদ্ধতার। সামান্য বৃষ্টি হলেই প্রতি বছর পানিতে হাবু ডুবু খেতে হয় সাতক্ষীরাবাসীকে। এবারও এর ব্যতিক্রম নয়। গত কয়েকদিনের টানা বৃষ্টিতে সাতক্ষীরার অধিকাংশ এলাকা পানিতে নিমজ্জিত হয়েছে। ইতোমধ্যেই ঘর ছেড়েছেন অনেক পরিবার। এ জলাবদ্ধতার মূল কারণ হলো জেলার নদীর জমি দখল করে অবৈধ স্থাপনা নির্মাণ। জেলার প্রভাবশালীরা ক্ষমতার দাপটে মরিচ্চাপ, বেতনা, খোলপেটুয়া ও ইছামতির চর দখল করে গড়ে তুলছেন তাদের স্থাপনা। যে কারণে নদীর পানির অবাধ চলাচল বাধাগ্রস্ত হচ্ছে। ফলে মরে যাচ্ছে নদী। আর সৃষ্টি হচ্ছে স্থায়ী জলাবদ্ধতার।
সম্প্রতি জানা গেছে সদর উপজেলার ব্যাংদহা এলাকায় মরিচ্চাপ নদীর চর দখল করার মহা উৎসব চলছে। নদীর জমি দখল করে তা আবার প্লট আকারে বিক্রিও করা হচ্ছে। এতে করে এলাকার সাধারণ মানুষ ফুঁসে উঠেছে। তবে ওই দখলদাররা প্রভাবশালী হওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে কথা বলতে ভয় পাচ্ছেন তারা। আর ওই জমি দখল সম্পর্কে পানি উন্নয়ন বোর্ড অবগত থাকলেও ব্যবস্থা গ্রহণ নিয়ে রীতিমত রশি টানাটানি করছেন পানি উন্নয়নের বোর্ডের কর্মকর্তারা। এক কর্মকর্তার সাথে যোগাযোগ করলে তিনি অন্য কর্মকর্তার কাছে পাঠিয়ে দেন, আবার অন্য কর্মকর্তার সাথে যোগাযোগ করলে তিনি ‘স্যারের’ সাথে যোগাযোগ করার কথা বলেন।
এলাকাবাসীর অভিযোগের ভিত্তিতে সরেজমিনে ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা গেছে ব্যাংদহা স্লুইস গেটের সামনে মরিচ্চাপ নদীর চর পড়েছে। সেই চর দখল করে সেখানে গড়ে তোলা হচ্ছে পাকা দোকানঘর।
সাতক্ষীরা সদর উপজেলা আ.লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক স্যামুয়েল ফেরদৌস পলাশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের দুর্নীতিবাজ কর্মকর্তাদের সাথে জোকসাজসে ভরাট হওয়া চর বিক্রি করেছেন। প্রতি বর্গ হাত জমি ২৫ হাজার টাকা দরে ৯ জনের কাছে বিক্রি করেছেন। যদিও জমির কোন কাগজ পত্র ক্রেতারা পায়নি। তবে ইতোমধ্যেই তাদের কাছ থেকে পুরো টাকা গ্রহণ করা হয়েছে।
তারপরও ৯ জনের প্রত্যেকে ১০০ বর্গ হাত জমি কিনে সেখানে পাকা ঘর নির্মান কাজ চলছে করছেন ৩মাস আগে থেকে। ইতোমধ্যে ৫ জনের পাকা ঘর নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হয়েছে। বাকি ৪জনের কারো ঘরের লিন্টন পর্যন্ত আবার কারো পিলার তোলা হয়েছে। এলাকাবাসী বিষয়টি নিয়ে কথা বলতে গেলে দোকানদাররা বলেন, প্রভাবশালী নেতা স্যামুয়েল ফেরদৌস পলাশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের পোল্ডার নং ২ এর এসও আবুল হোসেন ও সার্ভেয়ার বিমল কুমারকে মোটা অংকের টাকা দিয়ে ম্যানেজ করে কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন, বিরোধিতা করে কোন লাভ হবে না। এছাড়া পলাশ সদর উপজেলা আ.লীগের প্রভাবশালী নেতা হওয়ায় তার বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নিচ্ছেন না কেউ।
এলাকাবাসী ও ক্রেতাদের দেয়া তথ্যমতে সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ব্যাংদহা মৌজায় জেএল নং ১৭ এবং ১ নং খাস খতিয়ানের ৮৫ ও ১৫৩৮ নং দাগে ৫০০ হাত দৈঘ্য ও ৪০ হাত প্রস্থের ওই জমির একই ইউনিয়নের গোবরদাড়ী গ্রামের আহাদ আলী সরদারের ছেলে শ্যামুয়েল ফেরদৌস পলাশ বর্গহাত প্রতি ২৫ হাজার টাকায় বিক্রি করেছেন। তাদের কোন কাগজ পত্র দেয়া হয়নি। এই জমি উত্তর গাভা গ্রামের জমায়েত সানার ছেলে রবি সানা, মৃত রাধাপদ প্রামানিকের ছেলে ধনা প্রামাণিক, দক্ষিণ গাভা গ্রামের মৃত অধীর সরকারের ছেলে গোপাল সরকার, মৃত সন্তোষ প্রামানিকের ছেলে দেবাশীষ প্রামাণিক, উত্তর গাভা গ্রামের মৃত হাকিম সানার ছেলে আইয়ূব সানা, গোবরদাড়ী গ্রামের ছহিল উদ্দীনের ছেলে মিন্টু সরদার এবং জোড়দিয়া গ্রামের শেখ নুজ্জামানের ছেলে মারুফ সহ ৭ জন ব্যাক্তি কিনেছেন। স্লুইস গেটের সামনে অবৈধ চর বিক্রি করার ঘটনায় এলাকাবাসী হতাশ হয়ে পড়েছেন।
এলাকাবাসী আরো জানান, ফিংড়ি, গোবরদাড়ী, গাভা, জোড়দিয়াসহ প্রায় কয়েক হাজার গ্রামে পানি ওই স্লুইস গেট দিয়ে প্রবাহিত  হয়ে মরিচ্চাপ নদীতে পড়ে। কিন্তু নদীর এসব চর যদি দখল করা তবে পানি প্রবাহিত হতে না পেরে সৃষ্টি হবে স্থায়ী জলাবদ্ধাতার। এলাকাবাসীর দাবি বর্তমান সরকার যেখানে দেশের দক্ষিণ পশ্চিম অঞ্চলকে জলাবদ্ধতার হাত থেকে মুক্ত করতে প্রায় প্রতি বছরই কোটি কোটি টাকা দিয়ে নদী ও খাল খনন করছেন। সেখানে সরকারকে বৃৃদ্ধাঙ্গলী দেখিয়ে কতপয়ি স্বার্থন্বেষী মহল মেতেছেন নদী ও খাল দখলে। এসব দখলদারদের অবিলম্বে যদি আটকানো না যায়। তবে এ অঞ্চলের মানুষকে পানিতে ডুবে মরতে হবে প্রতিবছরই। চোখের জলে ভাসতে হবে এ অঞ্চলের মানুষের। মাত্র ২/১ মানুষের আর্থিক লোভের কারণে পানিতে ডুবে মরবে হাজার হাজার মানুষ। এবিষয়ে ফিংড়ী ইউনিয়ন ভূমি অফিসের নায়েব মুনসুর রহমানের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, ওই জমি পানি উন্নয়ন বোর্ডের অধীনে যে কারনে আমার কোন কিছু করার ক্ষমতা নেই। বলে তিনি এড়িয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন।
এব্যাপারে পানি উন্নয়ন বোর্ড-২ এর নির্বাহী প্রকৌশলী অপূর্ব কুমার ভৌমিক এর সাথে গতকাল সকাল ১০.৫৫ মিনিটে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন আপাতত আমরা কোনো ডিসিআর দিতে পারছিনা। কিন্তু কীভাবে ঐ জমিতে স্থাপনা তৈরি হচ্ছে তা জানা নেই। আপনি এবিষয় সার্ভেয়ার বিমাল বাবুর সাথে যোগাযোগ করেন। ১১টায় আমার মিটিং আছে তাই এখন আর কথা বলতে পারবো না। এদিকে পানি উন্নয়ন বোর্ড-২ এর সার্ভেয়ার বিমল বাবুর সাথে যোগাযোগ করলে তিনি তার স্যার অপূর্ব ভৌমিকের সাথে যোগাযোগ করার কথা বলে এড়িয়ে যান। এব্যাপারে এড. স্যামুয়েল ফেরদৌস পলাশের সাথে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

0 মন্তব্য
0 FacebookTwitterGoogle +Pinterest

DSC01716মাহফিজুল ইসলাম আককাজ: সাতক্ষীরা পাবলিক লাইব্রেরির নির্বাহী কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার বিকাল সাড়ে ৫টায় সাতক্ষীরা পাবলিক লাইব্রেরির কক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক ও কেন্দ্রীয় পাবলিক লাইব্রেরির সভাপতি আবুল কাশেম মোঃ মহিউদ্দিনের সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন সাতক্ষীরা পাবলিক লাইব্রেরির সহ সভাপতি প্রফেসর আব্দুল হামিদ, গাজী আবুল কাশেম, সাধারণ সম্পাদক মোঃ কামরুজ্জামান রাসেল, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ মহিউদ্দিন হাশেমী তপু, অর্থ সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান উজ্জল, সাহিত্য সম্পাদক তৃপ্তি মোহন মল্লিক, নির্বাহী সদস্য মোঃ আমিনুল হক, প্রভাষক রেজাউল করিম, অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম, শেখ তৌহিদুর রহমান ডাবলু, লায়লা পারভীন সেঁজুতি, বরুন ব্যানার্জী, শেখ হারুন উর রশিদ প্রমুখ।

0 মন্তব্য
0 FacebookTwitterGoogle +Pinterest